খুব ঘন চুল পড়লে এর সলিউশন কি? চুলপড়ার কি ভালো ওষুধ আছে? - ScienceBee Q&A

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির প্রশ্নোত্তর দুনিয়ায় আপনাকে স্বাগতম! প্রশ্ন অথবা উত্তর দিয়ে জিতে নিন পুরস্কার, বিস্তারিত এখানে দেখুন।

+3 টি ভোট
69 বার দেখা হয়েছে
"স্বাস্থ্য ও চিকিৎসা" বিভাগে করেছেন (150 পয়েন্ট)

1 উত্তর

+1 টি ভোট
করেছেন (15.7k পয়েন্ট)

চুল কমবেশি সবারই পড়ে। হয়তো কারও কম, কারও বেশি। দিনে ৫০ থেকে ১০০টি চুল পড়া স্বাভাবিক। তবে এর বেশি হলেই তা চিন্তার কারণ হয়ে দাঁড়ায়। আবার চুল পড়া নিয়ে বেশি চিন্তা করলেও চুল পড়ে বেশি। এই চুল পড়া সমস্যা থেকে বাঁচার জন্য প্রথমেই জানতে হবে কী কারণে চুল পড়ছে। কারণটা খুঁজে বের করে, তারপর সেই সমস্যার সমাধান করতে হবে। তখন আপনা-আপনিই চুল পড়া বন্ধ হয়ে যাবে। তবে শুধু তা-ই নয়, চুল পড়া বন্ধ করতে ও চুলের গোড়া মজবুত রাখতে নিয়মিত বেশ কিছু যত্ন নেওয়াও প্রয়োজন।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে হারমনি স্পার স্বত্বাধিকারী রূপবিশেষজ্ঞ রাহিমা সুলতানা বলেন, ‘রূপের সঙ্গে চর্চার সম্পর্ক সব সময়ের। আমরা বেশির ভাগ সময় চর্চা করি না। নিয়মিত যেকোনো ভালো অভ্যাস শরীরে ভালো কিছুই নিয়ে আসে। চুল পড়া রোধ করতে বা যত্ন নেওয়ার প্রথম শর্ত হচ্ছে শরীরের ভেতরে ও বাইরে দুই দিক থেকেই যত্ন নিতে হবে। সকালের নাশতায় অবশ্যই দুধ, ডিম ও কলা খাওয়ার অভ্যাস গড়ে তুলতে হবে। এই তিনটি খাবার চুলের জন্য খুব উপযোগী। বিশেষ করে এই তিন ধরনের খাবার সকালে খাওয়ার অভ্যাস গড়তে হবে।’

রাহিমা সুলতানা আরও বলেন, এই বর্ষা মৌসুমে চুল পড়ার সমস্যা খুব বেশি দেখা যায়। এ সময় আর্দ্রতা বেশি থাকে। মাথার তালু ভেজা ভেজা থাকে। তাই এ সময় বেশি যত্নের প্রয়োজন হয়। গোসলের আগে মাথায় তেল ঘষে শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলতে হবে। এ ছাড়া সুষম খাবার না গ্রহণ ও হরমোনের ইমব্যালান্স তৈরি হলেও চুল পড়ে। হরমোনের ইমব্যালান্সের ক্ষেত্রে দ্রুত চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে।

রূপবিশেষজ্ঞদের সঙ্গে কথা বলে চুল পড়া রোধে বেশ কিছু উপায় নিচে তুলে ধরা হলো:

অবশ্যই চুলে তেল দিতে হবে: চুল পড়া বন্ধ বা চুলের যত্ন নিতে অবশ্যই তেল দিতে হবে। আর এ ক্ষেত্রে সবচেয়ে ভালো হলো নারকেল তেল। নারকেল তেল চুলকে মসৃণ ও স্বাস্থ্যবান করে। এতে অ্যান্টি ব্যাকটেরিয়াল বৈশিষ্ট্য আছে, যা যেকোনো ব্যাকটেরিয়া বা ফাঙ্গাসের আক্রমণ থেকে চুলকে রক্ষা করে। তাই সপ্তাহে যে করেই হোক একদিন চুলে তেল দিতে হবে বা শ্যাম্পু করার আগে চুলে তেল ম্যাসাজ করতে হবে।

রোজমেরি ল্যাভেন্ডার তেলের ব্যবহার: এটি চুলের যত্নে অন্যতম কার্যকর একটি উপাদান। এতে তেলে চুল পড়া রোধের উপাদান আছে; যা চুল পড়া রোধ করতে সাহায্য করে। এ ছাড়া নতুন চুল গজাতেও সাহায্য করে। এতে থাকা আমলকী, নারকেল, জলপাই, জোজোবা, ক্যাস্টর উপাদান চুল পড়া বন্ধ করতে সাহায্য করে।

কেমিক্যালযুক্ত শ্যাম্পু প্রত্যাহার: চুলের যত্নে কেমিক্যালযুক্ত শ্যাম্পুকে ‘না’ বলুন। শ্যাম্পুতে বিটরুট নির্যাস, তেঁতুলের বীজ আছে কি না, লক্ষ রাখুন। এই উপাদানগুলো চুলের কোনো ক্ষতি না করে কার্যকরভাবে মাথার তালু পরিষ্কার করে। সরাসরি শুকনো চুলে শ্যাম্পু ব্যবহার করবেন না। তেল দিয়ে শ্যাম্পু ব্যবহার করতে হবে।

অবশ্যই কন্ডিশনার ব্যবহার করতে হবে: কন্ডিশনার ব্যবহার করলে চুল কেবল উজ্জ্বলই হয় না; এটি চুলের গোড়াকে মজবুত করে ও চুলকে মসৃণ করে। তবে অবশ্যই চুলের ধরন বুঝে কন্ডিশনার বেছে নিতে হবে। বিটরুট নির্যাস, অ্যাকুয়া, প্রো ভিটামিন বি-৫ সমৃদ্ধ কন্ডিশনার ব্যবহার করলে উপকার পাওয়া যাবে।

হালকা কুসুম পানির ব্যবহার: অনেকে মনে করেন, গরম পানি দিয়ে পরিষ্কার করলে চুল ভালো থাকে। এটি একেবারেই ভুল ধারণা। গরম পানি মাথার তালুর গুরুতর ক্ষতি করে, এতে চুল পড়ে ও চুল দুর্বল হয়ে যায়। তাই চুল ধুতে হালকা কুসুম গরম পানি ব্যবহার করা সবচেয়ে উপযোগী।

আপনি কী খাচ্ছেন? খারাপ খাদ্যাভ্যাস চুল পড়ার অন্যতম কারণ। এ জন্য সুষম খাদ্য গ্রহণ করতে হবে। প্রোটিন-সমৃদ্ধ খাবার চুল পড়া রোধে সাহায্য করে। ভিটামিন ই যুক্ত খাবার, সামুদ্রিক মাছ ডিম, দুধ চুলের জন্য খুবই উপকারী।

চুলের যত্নে হেয়ারপ্যাক: যদি খুব বেশি চুল পড়তে থাকে তাহলে হেয়ার প্যাক ব্যবহার করা যেতে পারে। ঘৃতকুমারী, আমলকী, শিকাকাই, নিমের গুঁড়ো একই পরিমাণে মিশিয়ে প্যাক তৈরি করে চুলে দিতে হবে। সপ্তাহে একবার এটির ব্যবহার চুল পড়া কমাবে। এ ছাড়া ডিম, মেথির গুঁড়ো ও টক দই মিশিয়ে প্যাক তৈরি করে চুলে দেওয়া যেতে পারে। সপ্তাহে দুদিন এই প্যাক ব্যবহারে চুলের গোড়া মজবুত হয়। প্যাক ধুতে সহনীয় হালকা কুসুম গরম পানি ব্যবহার করতে হবে।

গরম বাতাস চুলের জন্য ক্ষতিকরণ: কোনো ধরনের গরম বাতাস বা হিট চুলে নেওয়া যাবে না। এটি চুলের জন্য মারাত্মক ক্ষতিকর।

ক্রেডিট - প্রথম আলো

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

+1 টি ভোট
1 উত্তর 2.1k বার দেখা হয়েছে
+1 টি ভোট
1 উত্তর 39 বার দেখা হয়েছে
22 জুলাই "স্বাস্থ্য ও চিকিৎসা" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Faiza Faria (130 পয়েন্ট)
+2 টি ভোট
1 উত্তর 81 বার দেখা হয়েছে
+1 টি ভোট
1 উত্তর 587 বার দেখা হয়েছে
28 ফেব্রুয়ারি "স্বাস্থ্য ও চিকিৎসা" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Hojayfa Ahmed (86.7k পয়েন্ট)

6.4k টি প্রশ্ন

7.9k টি উত্তর

4.3k টি মন্তব্য

50.5k জন সদস্য

55 জন অনলাইনে রয়েছে
0 জন সদস্য এবং 55 জন গেস্ট অনলাইনে
  1. Muaz Affan Rafin

    900 পয়েন্ট

  2. Nusrat Jahan Nukta

    880 পয়েন্ট

  3. Fahad Alamgir Dhruba

    680 পয়েন্ট

  4. chhqwoht

    400 পয়েন্ট

  5. Md Amzad Hossain

    170 পয়েন্ট

মাসিক গিফট
১ম স্থান: ১০০ টাকা
২য় স্থান : ৭০ টাকা
৩য় স্থান: ৫০ টাকা

সাইন্স বী QnA তে আপনাকে স্বাগতম। অনেকগুলো, প্রায় ২০০+ এর উপর অনুত্তরিত প্রশ্ন থাকায় নতুন প্রশ্ন না করার এবং অনুত্তরিত প্রশ্ন গুলোর উত্তর দেওয়ার আহ্বান জানাচ্ছি। প্রতিটি উত্তরের জন্য ৪০ পয়েন্ট, যে সবচেয়ে বেশি উত্তর দিবে সে ২০০ পয়েন্ট বোনাস পাবে।


Science-bee-qna

সর্বাপেক্ষা জনপ্রিয় ট্যাগসমূহ

মানুষ এইচএসসি-উদ্ভিদবিজ্ঞান পানি এইচএসসি-প্রাণীবিজ্ঞান ঘুম চোখ এইচএসসি-আইসিটি জীববিজ্ঞান মোবাইল ক্ষতি পৃথিবী শরীর রক্ত চুল - আলো মাথা শীতকাল বৈজ্ঞানিক প্রাণী চিকিৎসা বৃষ্টি কারণ রোগ পার্থক্য সাপ কাজ #biology উপকারিতা খাওয়া ডিম গরম রং কী বিদ্যুৎ হাত খাবার প্রযুক্তি ভয় মশা মহাকাশ আগুন উপায় গাছ ব্যাথা রাত কেন সাদা বৈশিষ্ট্য পা #জানতে মনোবিজ্ঞান গণিত দুধ মেয়ে #ask উদ্ভিদ পদার্থবিজ্ঞান শক্তি মাছ গ্রহ দাঁত লাল বাচ্চা ঠাণ্ডা ফোবিয়া বাতাস বিড়াল সূর্য চাঁদ শব্দ আম চার্জ নখ পাতা রঙ স্বাস্থ্য নাক পাখি হরমোন বৃদ্ধি স্বপ্ন ওজন মস্তিষ্ক কালো ত্বক আকাশ সমস্যা কান্না বিস্তারিত রাগ আবিষ্কার হলুদ কম মুখ বেশি গরু গুগল অতিরিক্ত কুকুর
...